মেনু নির্বাচন করুন
পাতা

ভূমি সংক্রান্ত তথ্য

কাউখালী উপজেলার নামকরণের উৎপত্তি সুনিদিষ্ট ভাবে তেমন জানা না গেলেও সাধারণ মানুষের প্রচলিত বিশ্বাস এই যে, অতীতে এলাকার লোকজন অনেক স্থানে কুয়া বা গর্ত খনন করে  সেই পানি খাবার ও অন্যান্য কাজে ব্যবহার করত। এ কুয়া বা গর্তের স্থানীয় নাম ‘কাউ’ শুষ্ক মৌসুমে ঐ কুয়া অনেক সময় পানি শূন্য হয়ে যেত যার স্থানীয় নাম ‘খালি’ । পরবর্তীতে উলেস্নখিত ‘কাউ’ এবং ‘খালি’এ দুটি  শব্দের সমন্বয়ে অত্র উপজেলার নামকরণ হয় কাউখালী।

ক)  মোট ভূমির পরিমাণ- ৮৩,৮৪০ একর ।

খ)  কৃষি ভূমির পরিমাণ-৮,৪৮০ একর।

গ)  হ্রদ এলাকা- নাই।

ঘ)  বনভূমির পরিমাণ - ৬০,০০০ একর। 

ঙ)  অনাবাদি আবাদযোগ্যভূমি- ৭২৫ একর ।

চ) পতিত ভূমি- ৭৭১ একর।

ছ)  সেচের আওতায় কৃষি ভূমির পরিমাণ- ১,৫৮৭ একর।

জ)  জলে ভাসা ভূমির পরিমাণ- নাই।

ছবি


সংযুক্তি



Share with :

Facebook Twitter